সর্বশেষ সংবাদ:
Responsive image

ঘুরে দাঁড়াতে শুরু করেছে পুঁজিবাজার

ঢাকা, ৩১ আগস্ট ২০১৭: সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস বৃহস্পতিবার দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) প্রধান সূচক বা ডিএসইএক্স ৬ হাজার অতিক্রম করে ৬ হাজার ৬ পয়েন্টে দাড়িয়েছে; যা বিগত ৬ বছরের মধ্যে সূচকের সর্বোচ্চ অবস্থান।
এদিকে বর্তমান পুঁজিবাজারে বাজার মূলধনের পরিমাণ দাড়িয়েছে ৪ লাখ ২ হাজার ৯০ কোটি টাকা। দেশের পুঁজিবাজারের ইতিহাসে এটিই সর্বোচ্চ বাজার মূলধন।

এসবের প্রেক্ষিতে বিগত দিনের অস্থিরতার ছাপ মুছে আবারো ঘুরে দাঁড়াতে শুরু করেছে পুঁজিবাজার। বিনিয়োগকারীসহ বাজার সংশ্লিষ্ট প্রত্যেককেরই এখন বর্তমান বাজারকে ঘিরে প্রত্যাশা বাড়ছে। ইতিমধ্যে বাজারের পরিধি অনেক বাড়ানো হয়েছে। আরো বাড়ানোর ক্ষেত্রে ক্লিয়ারি করপোরেশন, ডেরিভেটিভ, কমোডিটি মার্কেট প্রতিষ্ঠার কাজ চলছে। এসব উদ্যোগ বাস্তবায়ণ হলে অদূর ভবিষ্যতে দেশের পুঁজিবাজার অনেক দূর এগিয়ে যাবে। তবে এক্ষেত্রে সাধারণ বিনিয়োগকারীদের আস্থা ধরে রাখা খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

আসলে বাজারকে ঘিরে যারা জড়িয়ে রয়েছেন তারা যদি একযোগে কাজ করে তাহলে কোনো ইস্যুই বাজারে নেতিবাচক প্রভাব ফেলতে পারবে না। তালিকাভুক্ত কোম্পানিগুলো ভালো ইপিএস দেখানোর পাশাপাশি ভালো ডিভিডেন্ড দিলে বিনিয়োগকারীরা অবশ্যই সেদিকে আগ্রহ বাড়াবে। রেগুলেটরি অথরিটিতে যারা রয়েছেন তারা বাজার উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছেন। অর্থাৎ যে যার অবস্থান থেকে সঠিকভাবে দায়িত্ব পালন করলে বাজার অবশ্যই গতিশীল হবে।

তবে বাজার মূলধনের তুলনায় দৈনিক লেনদেনের পরিমাণ খুবই নগন্য। পুঁজিবাজারে বিনিয়োগ করার মতো কোনো বড়ফান্ড এগিয়ে আসছে না। বীমা কোম্পানিগুলোর লাইফ ফান্ডের বিপুল পরিমাণ অর্থ অলস পড়ে রয়েছে। ব্যাংকগুলো যে পরিমাণ মুনাফা করেছে তার সামান্য পুন:বিনিয়োগ হয়েছে। আইনের মধ্যে থেকেই এসব প্রতিষ্ঠান এখনো বিপুল পরিমাণ অর্থ পুঁজিবাজারে বিনিয়োগ করতে পারে। এতে তারল্য সংকট নিরসন হওয়ার সঙ্গে বাজারে স্থিতিশীল পরিবেশ ফিরে আসবে। পাশাপাশি বিনিয়োগকারীরাও আস্থা ফিরে পাবে।

(বিনিয়োগবার্তা/ ৩১ আগস্ট ২০১৭)

Short URL: http://biniyougbarta.com/?p=24262

সর্বশেষ খবর