Responsive image

এল ক্লাসিকোতে রিয়ালের কাছে বার্সার হার

বিনিয়োগবার্তা ডেস্ক, ঢাকা: শনিবার রাতে চির প্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদের কাছে এল ক্লাসিকোতে ২-১ গোলে হেরে গেছে বার্সেলোনা। এ পরাজয়ের ফলে পয়েন্ট টেবিলের তিন নম্বরে নেমে গেছেন লিওনেল মেসিরা।

ম্যাচের প্রথমার্ধেই জোড়া গোল হজম করে ফেলেছিল বার্সেলোনা। প্রথম ১৩ মিনিটের সময় চলতি লিগে নিজের ১৯তম গোলটি করেন করিম বেনজেমা। পরে ২৭ মিনিটে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন টনি ক্রুস। দ্বিতীয়ার্ধে বার্সার পক্ষে অস্কার মিনগুয়েজা এক গোল শোধ করলেও তা যথেষ্ট ছিল না।

এ জয়ের ফলে এখন পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে উঠে গেছে জিনেদিন জিদানের শিষ্যরা। লিগের ৩০ ম্যাচ শেষে ২০ জয় ও ৬ ড্রয়ে রিয়ালের সংগ্রহ ৬৬ পয়েন্ট। এক ম্যাচ কম খেলে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদের পয়েন্টও ৬৬, তবে এক নম্বরে রিয়ালই। তাদের সমান ৩০ ম্যাচে ৬৫ পয়েন্ট নিয়ে তিন নম্বরে রয়েছে বার্সেলোনা।

ম্যাচে বরাবরের মতোই বল দখলের লড়াইয়ে এগিয়ে ছিল বার্সেলোনা। প্রায় ৭০ ভাগ সময় তারাই নিজেদের নিয়ন্ত্রণে রাখে বল। কিন্তু রিয়ালের রক্ষণে গিয়ে লক্ষ্য বরাবর শটই নিতে পারছিল না। পুরো ম্যাচে বার্সেলোনার নেওয়া ১৮ শটের মোট ৪টি লক্ষ্যে, যেখান থেকে গোল মিলেছে মাত্র ১টি।

অন্যদিকে ম্যাচে রিয়াল মাদ্রিদ গোলের জন্য শট নেয় ১৪টি, যার মধ্যে লক্ষ্যে ছিল ৩টি এবং গোল হয়েছে দুইটি। অন্য শট লেগেছিল বারে। গোলবার অবশ্য ধোঁকা দিয়েছে বার্সাকেও। মেসির একটি কর্নার সরাসরি লাগে বারে, পরে ম্যাচের একদম শেষদিকে বারে লেগে প্রতিহত হয় তাদের সমতায় ফেরার চেষ্টা।

মূলত প্রথমার্ধেই ম্যাচটি নিজেদের পকেটে নিয়ে নেয় রিয়াল মাদ্রিদ। ম্যাচের মাত্র ১৩ মিনিটের সময় ডান দিক থেকে লুকাস ভাস্কুয়েজের ক্রসে অসাধারণ সাইড-ফুট ফ্লিকে বার্সা রক্ষণের পাশাপাশি গোলরক্ষক টের স্টেগানকেও বোকা বানান বেনজেমা। চলতি লিগে এটি তার ১৯তম গোল।

এরপর ১৫ মিনিটের মধ্যে দ্বিতীয় গোল পায় লস ব্লাংকোসরা। যেখানে টনি ক্রুসের নৈপুণ্যের পাশাপাশি ছিল বার্সা রক্ষণের ভুলও। ম্যাচের ২৭ মিনিটের সময় ফ্রি-কিক থেকে গোলটি করেন তিনি। প্রথমার্ধে অনেক চেষ্টা করেও গোলের দেখা পায়নি বার্সেলোনা, দুই গোলে পিছিয়ে থেকেই বিরতিতে যায় সফরকারীরা।

দ্বিতীয়ার্ধে শুরু হয় মুষলধারে বৃষ্টি। যে কারণে নিজেদের স্বাভাবিক পরিকল্পনা থেকে সরে গিয়ে রক্ষণাত্মক খেলতে শুরু করে রিয়াল। এর ফায়দাও নিয়ে নেয় বার্সেলোনা। ম্যাচের ৬০ মিনিটের সময় জর্দি আলবার ক্রস থেকে স্কোরশিটে নাম তোলেন মিনগুয়েজা।

পুরো ম্যাচে প্রায় নিজের ছায়ায়ই বন্দী ছিলেন লিওনেল মেসি। প্রথমার্ধে সরাসরি কর্নার থেকে গোলের সম্ভাবনা জাগালেও, সেটি প্রতিহত হয় দূরের পোস্টে লেগে। এর বাইরে তেমন কোনো একক নৈপুণ্য দেখাতে পারেননি তিনি। ফলে এর মাশুলও দিতে হয়েছে বার্সেলোনাকে।

রিয়াল অধিনায়ক সের্হিও রামোস চোটের কারণে ম্যাচে নেই। মেসি তাই মাঠে নামলেই ছুঁয়ে ফেলতেন রামোসের সবচেয়ে বেশি ৪৫টি এল ক্লাসিকো খেলার রেকর্ড। বার্সেলোনা ফরোয়ার্ড তা ছুঁয়ে ফেললেন। এল ক্লাসিকোর ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি গোল ও অ্যাসিস্টের রেকর্ডও তারই ছিল।

কিন্তু মেসির অযাচিত আরেকটা ব্যক্তিগত রেকর্ডও হয়ে গেল। এর আগের ছয় এল ক্লাসিকোর মতো এবারও গোলহীন থেকে গেলেন আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড। ক্যারিয়ারে এর আগে শেষ কবে টানা ৭ ম্যাচ গোলহীন ছিলেন মেসি, কখনো ছিলেন কি না, ভাবার ব্যাপার।

(ডিএফই/১১ এপ্রিল, ২০২১)

Short URL: https://biniyougbarta.com/?p=141845

সর্বশেষ খবর