Responsive image

মিয়ানমারের সঙ্গে সম্পর্ক স্থগিত করছে নিউজিল্যান্ড

বিনিয়োগবার্তা ডেস্ক, ঢাকা: মিয়ানমারের সঙ্গে সব ধরনের উচ্চপর্যায়ের যোগাযোগ স্থগিত করছে নিউজিল্যান্ড। একই সঙ্গে দেশটির সেনা নেতৃত্বের ওপর ভ্রমণনিষেধাজ্ঞা দিতে যাচ্ছে নিউজিল্যান্ড। বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

মিয়ানমারে গত সপ্তাহে সংঘটিত সামরিক অভ্যুত্থানের জেরে দেশটির ব্যাপারে এই পদক্ষেপগুলো নিচ্ছে নিউজিল্যান্ড।

মঙ্গলবার নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জেসিন্ডা আরডার্ন এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, ‘আমাদের কঠোর বার্তা হলো, আমরা নিউজিল্যান্ড থেকে যা করতে পারি, তা করব। আমরা যা করব, তার মধ্যে একটি হলো উচ্চপর্যায়ের আলোচনা স্থগিত করা।’

নিউজিল্যান্ডের সহায়তা প্রকল্প দিয়ে মিয়ানমারের সেনাবাহিনী যাতে কোনোভাবেই উপকৃত না হয়, তা নিশ্চিত করার ঘোষণা দেন জেসিন্ডা আরডার্ন। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘আমরা মিয়ানমারে যে অর্থায়ন করছি, তা যেন কোনোভাবেই দেশটির সামরিক শাসনকে সমর্থন না করে, তা নিশ্চিত করব।’

২০১৮ থেকে ২০২১ সাল নাগাদ মিয়ানমারে নিউজিল্যান্ডের সহায়তা প্রকল্পের আর্থিক মূল্য প্রায় ৩০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার।

মিয়ানমার প্রসঙ্গে পৃথক একটি বিবৃতি দিয়েছেন নিউজিল্যান্ডের পররাষ্ট্রমন্ত্রী নানাইয়া মাহুতা। তিনি বলেছেন, মিয়ানমারের সেনাবাহিনীর নেতৃত্বাধীন সরকারকে বৈধতা দেয় না নিউজিল্যান্ড। মিয়ানমারের আটক বা গ্রেপ্তার রাজনৈতিক নেতাদের অবিলম্বে মুক্তি দিতে আহ্বান জানাচ্ছে নিউজিল্যান্ড। একই সঙ্গে মিয়ানমারে বেসামরিক শাসন পুনর্বহালেরও আহ্বান জানাচ্ছে নিউজিল্যান্ড।

নানাইয়া মাহুতা বলেন, মিয়ানমারের সামরিক নেতাদের ওপর ভ্রমণনিষেধাজ্ঞা বলবতে নিউজিল্যান্ড সরকার সম্মত হয়েছে। আগামী সপ্তাহে এই নিষেধাজ্ঞার রূপরেখা চূড়ান্ত করা হবে।

(ডিএফই/০৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২১)

Short URL: https://biniyougbarta.com/?p=137155

সর্বশেষ খবর